ঢাকা শনিবার
১৩ জুলাই ২০২৪
০৪ জুলাই ২০২৪

‘ভালোবাসার দ্বীপে’ সংঘর্ষের ঘটনায় নিহত ৩২


ডেস্ক রিপোর্ট
214

প্রকাশিত: ২৫ অক্টোবর ২০২২ | ০৩:১০:১৬ পিএম
‘ভালোবাসার দ্বীপে’ সংঘর্ষের ঘটনায় নিহত ৩২ ফাইল-ফটো



পাপুয়া নিউগিনির ‘ভালোবাসার দ্বীপে’ দুটি ক্ষুদ্র জাতির মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনায় ৩২ জন নিহত হয়েছে। এতে আরও ১৫ জন নিখোঁজ রয়েছে। তাদের মধ্যে এখনও সংঘর্ষ চলছে। ভালোবাসার দ্বীপে কুলুমাটা এবং কুবোমা গ্রুপের মধ্যে সোমবার (২৪ অক্টোবর) থেকেই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এই দ্বীপটি পাপুয়া নিউগিনির মিলনি বে প্রদেশে অবস্থিত।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে মঙ্গলবার (২৫ অক্টোবর) ওই এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ কথা জানিয়েছেন দেশটির অভ্যন্তরীণ নিরাপত্তা মন্ত্রী পিটার সিয়ামালিলি। তিনি আরও বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে প্রয়োজনে তাদের উপর লাঠি চার্জ করার নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

পাপুয়া নিউগিনিতে অবৈধভাবে ব্যাপক অস্ত্র প্রবেশ করার কারণে প্রায় সময়ই বিভিন্ন ক্ষুদ্র জাতির গোষ্ঠীর মধ্যে এ ধরনের সংঘর্ষ হয়ে থাকে।

এদিকে সরকারিভাবে মৃতের সংখ্যা এখনও প্রকাশ করা হয়নি। তবে সরকারি একটি সূত্র দ্য গার্ডিয়ানকে জানিয়ে, ওই সংঘর্ষে ৩২ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং ১৫ জন নিখোঁজ রয়েছে।

তবে নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন জানিয়েছেন, গত মাসে ফুটবল খেলাকে কেন্দ্র করে কুবোমা গ্রুপের লোকজন তাদের বিপরীত পক্ষের একজনকে হত্যা করে। এরপরই সংঘর্ষ শুরু হয়।


আরও পড়ুন: